সর্বশেষ
Home / দুর্ঘটনা / মেহেরপুরে আবার সেতু ধসে পড়ার আশঙ্কা রয়েছে কিন্তু…

মেহেরপুরে আবার সেতু ধসে পড়ার আশঙ্কা রয়েছে কিন্তু…

মেহেরপুর প্রতিনিধি :মেহেরপুর-কুষ্টিয়া মহাসড়কের আলমপুরে কংক্রিটের সেতু রয়েছে।সপ্তাহখানেক আগে পাথরবোঝাই একটি ট্রাক সেতুটির ওপর দিয়ে যাওয়ার সময় কিছু অংশ দেবে গিয়ে মাঝখানে ফাটল ধরে।বিষয়টি জানার পর জেলা প্রশাসকের নির্দেশে সড়ক ও জনপথ বিভাগ সেতুর ওপরেই দ্রুত একটি বেইলি সেতু স্থাপন করে। কিন্তু বেইলি সেতুটি মূল সেতুর সমান হওয়ায় যানবাহনের পুরো চাপ পড়ছে মূল সেতুর ওপরেই। তবে বেইলি সেতুর দৈর্ঘ্য কয়েক মিটার বাড়িয়ে স্থাপন করলে মূল সেতুর বদলে চাপ মাটিতে পড়ত।ফলে সেতুটি অনেকটা টেকসই হতো। কিন্তু তা না করায় দুটি সেতুই ধসে পড়ার আশঙ্কা রয়েছে।

সরেজমিনে গতকাল দুপুরে আলমপুর সেতু পরিদর্শনে গিয়ে দেখা যায়,এলাকায় সড়ক ও জনপথ বিভাগের পক্ষ থেকে মাইকে ঘোষণা করা হচ্ছে ক্ষতিগ্রস্ত সেতুর ওপর দিয়ে পাঁচ টনের বেশি ওজনের যানবাহন চলাচল করা যাবে না। কিন্তু ঘোষণার সময়ই একটি ৩৫-৪০ টন ওজনের পাথরবোঝাই ট্রাক সেতুর ওপর দিয়ে পার হয়ে যায়। এর পরই কয়েকটি যাত্রীবাহী বাস ও ট্রাক যেতে দেখা গেছে। যার
কোনোটিই ১০ টনের কম নয়। যানবাহনগুলো যাওয়ার সময় সেতুর ওপরের প্রান্তে বেঁকে যাচ্ছিল ও পুরো সেতুটি ঝাঁকি দিয়ে উঠছিল।

মেহেরপুর সড়ক ও জনপথ বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী মোহাম্মদ জিয়াউল হায়দার বলেন,অতিমাত্রায় লোড পড়ার কারণে সেতুর মাঝের পিলারটি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে।এ কারণে সেতুটিতে ফাটল দেখা দিয়েছে। তবে দুই পাশের পিলার ভালো থাকায় বেইলি সেতুটিতে সমস্যা হওয়ার কথা নয়। তার পরও এলাকাবাসীর মনে আশঙ্কা থাকায় সেখানে একটি নতুন সেতু নির্মাণ করার জন্য মন্ত্রণালয়ে প্রস্তাবনা পাঠানো হয়েছে।

আগামী ডিসেম্বর নাগাদ কাজ শুরু হবে বলে আশা করছি। জেলা বাস ও মিনিবাস মালিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক ও জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান গোলাম রসুল বলেন,সেতুটিকে চলাচলের উপযোগী রাখতে মালিক সমিতির পক্ষ থেকে একজনকে তদারকি করতে রাখা হবে।
মেহেরপুরের জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ আনোয়ার হোসেন বলেন,আপাতত সেতুটি দিয়ে সর্বোচ্চ পাঁচ টনের যানবাহন চলাচল করতে বলা হয়েছে। তা ছাড়া সেখানে নতুন সেতু নির্মাণের প্রস্তুতি এরই মধ্যে শুরু হয়েছে।

প্রিন্ট

About এডমিন

Check Also

জীবননগরে ভালোবাসায় সিক্ত হলেন যশোরের জেলা প্রশাসক আব্দুল আওয়াল

জীবননগর প্রতিনিধিঃ জীবননগরে রাজনৈতিক, সুধী, সাংবাদিক ও স্থানীয় সাধারণ জনগনের ভালোবাসায় সিক্ত হলেন জীবননগর উপজেলার …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *