সর্বশেষ
Home / অপরাধ-দুর্নীতি / কুড়ুলগাছি মুদি দোকানীর টাকা ছিনতাই মামলার ৪ আসামি জামিনে মুক্তি

কুড়ুলগাছি মুদি দোকানীর টাকা ছিনতাই মামলার ৪ আসামি জামিনে মুক্তি

নিজস্ব প্রতিনিধিঃ দামুড়হুদার কুড়ুলগাছি মুদি ব্যবসায়ীর ৩৫ হাজার টাকা ছিনতাই মামলার ৪ আসামির জামিনে মুজত হয়েছেন। বুধবার চুয়াডাঙ্গা জেলা জজ আদালত থেকে জামিনে মুক্তি পান তারা। ৪ আসামী জামিনে মুক্তি পাওয়ার ঘটনায় ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন মুদি ব্যবসায়ীর পরিবার সহ স্থানীয় ব্যাক্তিরা।

মুদি ব্যবসায়ী শওকত আলী অভিযোগ করে জানান,৪ আসামী বিপ্লব,রতন,মিরাজ ও হুসাইনের পরিবার ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে আমার কাছে আসে আপোস মিমাংসা করার জন্য। আমাকে অনেক অনুরোধ বিনিময় করে। আমি সাত পাচ না ভেবে ৪ জনের ভবিষতের কথা চিন্তা করে আপোস মিমাংসা করতে রাজী হয়ে যায়। তারা আমার এই সুযোগ টাকে কাজে লাগিয়ে ছেলের জামিন করে এনে অন্যত্র পাঠিয়ে দিয়ে এখন আর আপোষ মিমাংসা করতে রাজী হচ্ছে নাম।

তারা পাড়া মহল্লায় বলে বেড়াচ্ছে আমাদের ছেলেরা দোষী নয়। শওকত ও বিপ্লব মিথ্যা দোষারপ করে আমাদের ছেলেদের ফাসাচ্ছে। এই ঘটনায় প্রধান আসামী বিপ্লব নিজেকে বাচাতে বাকী ৩ জনের নাম নিয়েছে বলে অভিযোগ রতন,মিরাজ ও হুসাইনের পরিবারের।

এদিকে ঘটনার দিন থেকে পলাতক আছে প্রধান অভিযুক্ত আসামী মিরাজ, শওকত এবং ঘটনার ৩ নং আসামী বিপল্বের দাবি ছিনতাই করা ৩৫ হাজার টাকা মিরাজের কাছে আছে। মিরাজকে ধরলে সমস্ত টাকা পাওয়া যাবে।

উল্লেখ্য, দামুড়হুদার কুড়ুলগাছিতে এক মুদি ব্যবসায়ীকে মারধর করে নগদ ৩৫ হাজার টাকা ছিনতায়ের ঘটনা ঘটে। কুড়ুলগাছি বাজারের ইত্যাদি ষ্ঠোরের মালিক শওকত আলির সাথে গত শনিবার রাত ৯টার দিকে এই ঘটনা ঘটে। এই সময় শওকতের কাছে থাকা নগদ ৩৫ হাজার ছিনতাই করে এবং কাছে থাকা লাঠি দিয়ে চোখের কোনে আঘাত করে ছিনতাই করে পালিয়ে যাই ছিনতাইকারীরা। এই ঘটনায়  ওই রাতেই অভিযুক্ত  বিপ্লব নামের এক ছিনতাইকারীকে আটক করেছে পুলিশ। আটককৃত ছিনকারী বিপ্লব কুড়ুলগাছি বাগানপাড়ার মতিয়ার রহমানের ছেলে। ঘটনার সাথে জড়িত হাফিজুরের ছেলে রতন,রকিবুলের ছেলে শাওন এবং মফিজুরের ছেলে মিরাজ পলাতক রয়েছে।

স্থানীয়সূত্রে জানা গেছে,দামড়ুহুদা উপজেলার কুড়ুলগাছি বাজার পাড়ার ইত্যাদি ষ্টোরের মালিক কামাল উদ্দিনের ছেলে শওকত আলি প্রতিদিনের ন্যায় গত শনিবার রাত ৯টার দিকে বাজারের দোকান বন্ধ করে বাড়ি ফিরছিলেন। পথিমধ্যে আগে থেকে ওৎ পেতে থাকা একদল ছিনতাইকারী শওকত আলিকে মারধর করে তার কাছে ব্যাগে থাকা নগদ ৩৫ হাজার টাকা ছিনতাই করে পালিয়ে যায়।

ছিনতাই করার সময় ছিনতাইকারীরদের একজনের সাথে শওকত আলির ধস্তাধস্তি হয়। এবং তাকে শওকত চিনে ফেললে শওকতের কাছে থাকা লাঠি দিয়ে ছিনকারী তার চোখে নিচে আঘাত করে। এই ঘটনায় অভিযুক্ত ছিনতাইকারী কুড়ুলগাছি বাগানপাড়ার মতিয়ার রহমানের ছেলে বিপ্লব হোসেনকে ওই রাতেই গ্রেফতার করে দামুড়হুদা মডেল থানায় সোপর্দ করে কার্পাসডাঙ্গা ক্যাম্প পুলিশ। সোমবার অভিযুক্ত আসামী বিপ্লব জিজ্ঞাসাবাদ শেষে ঘটনার সাথে জড়িত ৩ জনের নাম উল্লেখ করে। 

এই বিষয়ে কার্পাসডাঙ্গা পুলিলশ ক্যাস্পের ইনচার্জ আসাদুজ্জামান আসাদ ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন,ঘটনার সাথে জড়িত বিপ্লবকে রাতেই গ্রেফতার করে দামুড়হুদা মডেল থানায় সোপর্দ করেছি। সোমবার সারাদিন জিজ্ঞাসাবাদ শেষে ঘটনার সাথে জড়িত ৩ জনের নাম উল্লেখ করেছে আসামী। ঘটনার সাথে জড়িত রতন,শাওন ও মিরাজকে গ্রেফতার অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

প্রিন্ট

About এডমিন

Check Also

ভোটারহীন নির্বাচনের মাধ্যমে নির্বাচন ব্যবস্থার কবর রচিত হয়েছে: পীর সাহেব চরমোনাই

ইসলামী অন্দোলন বাংলাদেশ-এর আমীর মুফতি সৈয়দ মুহাম্মাদ রেজাউল করীম (পীর সাহেব চরমোনাই) বলেন, ভোটার ও …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *